প্রাণ উপযোগি ৫৪ গ্রহ | প্রযুক্তির আলোয় * আলোকিত জগৎ | The whole technology of light

প্রাণ উপযোগি ৫৪ গ্রহ

Print this post

বিশাল এই মহাবিশ্বে মানুষ কি একমাত্র বুদ্ধিমান প্রাণী নাকি কোথাও ছড়িয়ে ছিটিয়ে আছে আমাদের কোন মহাজাগতিক প্রতিবেশি। এমন প্রশ্ন যুগ যুগ ধরে মানুষের মনে বারবার উদয় হয়েছে। এই প্রশ্নেরই জবাব দিতে সমপ্রতি নাসার কয়েকজন বিজ্ঞানী প্রাণের বিকাশের উপযোগি ৫৪ টি নতুন গ্রহ চিহ্নিত করেন বলে দাবি করেছেন। আমাদের সোলার সিস্টেমের বাইরে প্রায় ১২৩৫টি গ্রহ বা গ্রহসাদৃশ্য বস্তুর উপর নাসার ক্যাপলার টেলিস্কোপের সাহায্যে অনুসন্ধান চালিয়ে এ গ্রহগুলো চিহ্নিত করা হয়েছে। এ প্রসঙ্গে নাসার বিজ্ঞানী উইলিয়াম বরুকি বলেন, আশ্চর্যজনক ভাবেই আমরা ৫৪টি প্রাণের উপযোগিগ্রহ চিহ্নিত করেছি। এর প্রাচুর্য অদ্ভুত ও আশ্চর্যজনক। আমাদের গ্যালাক্সির মধ্যেই ১২’শর বেশি এ নতুন আবিষ্কৃত জিনিসগুলো গ্রহ কিনা তা অবশ্য এখনো নিশ্চিত নয়। তবু বরুকিরঅনুমান আবিষ্কৃত বস্তুগুলোর ৮০ শতাংশ আসলে গ্রহ। তবে অন্যান্য বিজ্ঞানীদের মতে গ্রহ হতে গেলে নির্দিষ্ট কিছু বৈশিষ্ট থাকা প্রয়োজন। যেমন আকার, গঠন, তাপমাত্রা, নক্ষত্রের সাথে দুরত্ব ইত্যাদি। কিন্তু নাসার ক্যাপলার টেলিস্কোপ এসব বৈশিষ্ট ওই বস্তুগুলোয় বিদ্যমান কিনা তা নিশ্চিত করতেপারেনি। এছাড়া এগুলোর আচার-আচরণ, আবহাওয়াগত বৈশিষ্ট, জল ও কার্বনের উপস্থিতিও নিশ্চিত করা যায়নি। তাই এখনো এর সম্পর্কে সব বলে দেয়া সম্ভব নয় বলে জানিয়েছেন তারা। এছাড়া চিহ্নিত গ্রহগুলো আমাদের গ্যালাক্সিতে হলেও এত অসম্ভব দুরত্বে অবস্থিত যে বর্তমান প্রযুক্তি অনুযায়ি এগুলোতে পৌছাতে মিলিয়ন বছর লাগবে।

জানা অজানার মহাবিশ্ব

 

You can leave a response, or trackback from your own site.